শাহজালাল ও শাহপরানের (র.) মাজার জিয়ারত করলেন খালেদা জিয়া

বিএনপি চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়া সিলেটে হযরত শাহজালাল (র.) এবং শাহপরানের (র.) মাজার জিয়ারত করেছেন। তিনি সেখানে কুরআন তেলাওয়াত ও দোয়া দরুদ পড়ে মোনাজাত করেন। দুহাত তুলে মহান আল্লাহর সাহায্য প্রার্থনা করেন। এসময় দরগাহ দুটি ঘিরে ছিল লোকে লোকারণ্য। আট ফেব্রুয়ারি জিয়া অরফানেজ ট্রাস্ট মামলার রায়ের তিন দিন আগে তার এই মাজার জিয়ারত একান্ত ব্যক্তিগত ধর্মাচার বলে দাবি করছে দলটি।
এর আগে সোমবার সকাল সোয়া ৯টায় সড়কপথে ঢাকা থেকে গাড়িবহর নিয়ে রওনা দিয়ে সিলেটে পৌঁছান বিকাল সাড়ে চার টায়। সিলেটে পৌঁছে তিনি সার্কিট হাউজে কিছুক্ষণ বিশ্রাম নিয়ে সন্ধ্যায় প্রথমে হজরত শাহজালাল (র.) ও পরে হজরত শাহপরান (র.) এর মাজার জিয়ারত করেন। সিলেটের মাজারমুখী সড়কগুলো ছিল বিপুল সংখ্যক মানুষ। মিছিলে উত্তাল ছিল সড়কমালা।’ আমার নেত্রী আমার মা /বন্দী হতে দিবো না..এই শ্লোগানই ছিল তাদের মুখে।
এদিকে খালেদা জিয়ার গাড়ি বহর সিলেট যাত্রাপথে তাকে শুভেচ্ছা জানাতে বিভিন্ন স্থানে জড়ো হওয়া বিএনপি নেতাকর্মীদের বাধা, গ্রেফতার,পুলিশ ও বিএনপি নেতাকর্মীদের মধ্যে ধাওয়া-পাল্টা ধাওয়া, লাঠিচার্জ ও জুতা প্রদর্শনের ঘটনা ঘটে। যাওয়ার সময় পুরো সড়কে বিপুল সংখ্যক পুলিশ বেগম জিয়াকে নিরাপত্তা দেন।
তাকে সড়কে অভ্যর্থনা জানাতে আসা বিএনপির আইনসম্পাদক অ্যাডভোকেট সানাউল্লাহ মিয়া,সহ আন্তর্জাতিক সম্পাদক নজরুল ইসলাম আজাদ,নারায়ণগঞ্জ সিটি করপোরেশন নির্বাচনে মেয়র পদে নির্বাচন করা বিএনপির প্রার্থী অ্যাডভোকেট সাখাওয়াত হোসেন, নরসিংদী বিএনপির সিনিয়র সহসভাপতি সুলতান উদ্দিন মোল্লা, কিশোরগঞ্জ জেলা বিএনপির সাধারণ সম্পাদক মাজারুল ইসলাম, জেলা স্বেচ্ছাসেবক দলের যুগ্ম-সাধারণ সম্পাদক বাহার উদ্দিনসহ অর্ধ শতাধিক নেতাকর্মী আটক করে পুলিশ।এর মধ্যে সানাউল্লাহ মিয়াকে পুলিশ শিবপুর থেকে আটক করে গাড়িতে করে খানিক্ষণ রাস্তায় ঘুরিয়ে পরে ছেড়ে দেয়। সিলেট থেকে পঁয়ত্রিশ ও মৌলভীবাজার থেকে তিনজনকে আটক করে পুলিশ।
খালেদা জিয়ার যাত্রাপথে আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর সদস্যরা যাত্রাবাড়ী থেকে নরসিংদী পর্যন্ত রাস্তার দুই পাশে কাউকে দাঁড়াতে দেয়নি। দোকানপাটও খুলতে দেয়নি। নরসিংদীতে বাধার মুখে পড়ে খালেদা জিয়ার গাড়িবহর। সেখানে ‘নৌকা’ স্লোগান দিয়ে জুতা প্রদর্শন করে শিবপুর উপজেলা চেয়ারম্যান সাইফুল ইসলাম বীরুর সমর্থকরা। বেলা ১১টা ২০মিনিটে নরসিংদীর বেলানগর বাজারের নরসিংদী জেলা কারাগারের সামনে এ ঘটনা ঘটে। হঠাৎ  কিছু লোক সেখানে নৌকার স্লোগান দিয়ে বিএনপি চেয়ারপারসনের গাড়িবহরে জুতা প্রদর্শন করে। এ সময় তারা বিক্ষোভ মিছিল করে গাড়িবহরে বাধা দেয়। পরে পুলিশ এসে তাদের সরিয়ে দিলে গাড়িবহর সামনে অগ্রসর হয়।
Please follow and like us:

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *