নতুন মন্ত্রিসভায় নেই ৩৬ জন

গত পাঁচ বছর ধরে যারা মন্ত্রিসভায় দায়িত্ব পালন করেছেন তাদের মধ্যে ৩৬ জনই বাদ পড়েছেন। এদের মধ্যে যারা পূর্ণাঙ্গ মন্ত্রী ছিলেন তাদের প্রায় সবাই প্রবীণ নেতা। আর জোটের কোনো শরিক দলকেই মন্ত্রিত্ব দেননি শেখ হাসিনা।গত ৩০ ডিসেম্বরের ভোটে ভূমিধস জয় পাওয়া আওয়ামী লীগ সরকারের মন্ত্রিসভা শপথ নিতে যাচ্ছে সোমবার। গত বৃহস্পতিবার শেখ হাসিনা সরকার গঠনের আমন্ত্রণ পাওয়ার আগে থেকেই নতুন মন্ত্রিসভার প্রস্তুতি শুরু হয়ে যায়। প্রথমবারের মতো আগের দিনই সবার নাম ও দায়িত্ব আগে থেকেই জানিয়ে দেওয়া হয়।

আজ রবিবার পর্যন্ত দায়িত্ব পালন করে যাওয়া ৪৯ সদস্যের মন্ত্রিসভার মধ্যে ২৫ জন পূর্ণাঙ্গ মন্ত্রী দপ্তর ফিরে পাননি। এর বাইরে ভোটের আগে বাদ পড়া চার টেকনোক্র্যাট মন্ত্রীর দুই জন ফিরে পাননি দায়িত্ব। আর নয় জন প্রতিমন্ত্রী ও দুইজন উপমন্ত্রী বাদ পড়েছেন।

যেসব মন্ত্রী বাদ:

বাদ পড়ার তালিকাটাই বড় চমক। অর্থমন্ত্রী আবুল মাল আবদুল মুহিত, শিল্পমন্ত্রী আমির হোসেন আমু , বাণিজ্যমন্ত্রী তোফায়েল আহেমেদ, কৃষিমন্ত্রী বেগম মতিয়া চৌধুরী, স্থানীয় সরকার, পল্লী উন্নয়ন ও সমবায় মন্ত্রী খন্দকার মোশাররফ হোসেনের বাদ পড়ার বিষয়টি বিস্ময় জাগানিয়া।

পররাষ্ট্রমন্ত্রী আবুল হাসান মাহমুদ আলী, রেলপথমন্ত্রী মুজিবুল হক, প্রাথমিক ও গণশিক্ষামন্ত্রী মোস্তাফিজুর রহমান, সংস্কৃতি মন্ত্রী আসাদুজ্জামান নূর, বেসামরিক বিমান পরিবহন ও পর্যটন মন্ত্রী এ কে এম শাহজাহান কামালের বাদ পড়াটাও অনেকটা চমকের মতো।

জোটের শরিকদের মধ্যে সমাজকল্যাণমন্ত্রী রাশেদ খান মেনন, তথ্যমন্ত্রী হাসানুল হক ইনু, পরিবেশ ও পানিসম্পদ আনোয়ার হোসেন মঞ্জুর নাম নতুন মন্ত্রিসভায় না দেখে অবাক হয়েছেন আওয়ামী লীগের নেতারাই। আর জাতীয় পার্টির নেতা বন ও জলবায়ু পরিবর্তন মন্ত্রী আনিসুল ইসলাম মাহমুদ মন্ত্রিসভায় থাকছেন না, এই বিষয়টি আগেই জানা গিয়েছিল। দলের চেয়ারম্যান হুসেইন মুহম্মদ এরশাদ আগেই জানিয়েছেন, এবার তারা মন্ত্রিসভায় থাকছেন না।

Please follow and like us:

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *